Wednesday, February 21, 2018

আজ হাসুন প্রাণ খুলে চরম জোকস Bangla funny jokes

আজ হাসুন প্রাণ খুলে চরম জোকস Bangla funny jokes

০১.
বিচারকঃ গাড়িটা কিভাবে চুরি করলে বল ?
অভিযুক্তঃ আমি চুরি করিনি হুজুর! গাড়িটা কবরস্থানের সামনে দাঁড়িয়েছিল কি না।
তাই ভাবলাম মালিক বোধহয় মারা গেছে, তার আর গাড়ির দরকার নেই।

০২.
১ম-ফকিরঃ আইজকা মতিঝিলে একখান১০০ টাকার নোট কুড়ায়ে পাইছিলাম.
২য়-ফকিরঃ কস কি..??তোর দেখি বিরাট ভাইগ্য!
১ম-ফকিরঃ আরে না,নোট খান জাল আছিল, তাই ফালাইয়া দিছি!
২য়-ফকিরঃ জাল আছিল ক্যামনে বুঝলি?
১ম ফকিরঃ তুই কোনোদিন ১০০টাকার নোটে ১এর পরে তিনটা শূন্য দেখছস?


০৩.
এক পাগল খুব মনোযোগ দিয়ে চিঠি লিখছে। তো সে সময় আরেকজন এসে তাকে জিজ্ঞেস করলো, ‘চিঠি লেখ? কাকে!
“নিজেকেই লিখি।” তখন লোকটা আবার বলল,“নিজেকে কি লেখ?”পাগলটা বললো,“আরে!
আগে তো চিঠিটা আমার কাছে আসুক, তারপর পড়ে দেখি, তারপরনা জানাবো!

০৪.
ঢাকা নিউইয়র্ক বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইট চলছে। এক
ভদ্রলোক টয়লেটে গেলেন। গিয়ে দেখেন আরেকজন
কমোডে বসে আছেন। কিছুক্ষন বাদে আবার গেলেন। দেখেন
সেই লোক বসে আছেন। তৃতীয় বারও একই অবস্থা। ভদ্রলোক
বিরক্ত হয়ে বিমানের ক্রুকে বললেন, ” এক জনই যদি এতক্ষন
ধরে বাথরুম করে অন্যরা কখন যাবে?”
ও, উনার কথা বলছেন? উনি তো উঠবেন না, এ ফ্লাইটে খুব
ভিড় তো, তাই ওটাই উনার সিট!”

০৫.
অ্যাম্বুলেন্স
সাদা হয় কেন ?
ছাত্রের উত্তর – অ্যাম্বুলেন্স…এ
অক্সিজেন সিলিন্ডার
থাকে আর অক্সিজেন
একটা গ্যাস|
গ্যাস রান্নার
কাজে ব্যবহার হয় আর খাবার
ভিটামিন এর উৎস|
আমরা সূর্য থেকে ভিটামিন Dপাই
আর সূর্য আলো দেয়|
আলো বাল্ব
থেকে আসে আর ক্রিসমাস
ট্রি তে ছোট
বাল্ব লাগান হয়!
ক্রিসমাস মানে গিফট আর
সান্তা গিফট নিয়ে আসে…
সান্তা দক্ষিন
মেরুতে থাকে আর
ওইখানের মেরুতে ভাল্লুক থাকে!
ওই মেরুর ভাল্লুক সাদা আর এই জন্য
অ্যাম্বুলেন্স ও সাদা ! !

০৬.
বিমানে স্থান বুঝা
৩ জন আবহাওয়াবিদ
বিমানে চড়ে ঘুরতে বেরিয়েছে।
১ম জনঃ আমি বিমানের
জানালা দিয়ে হাত বের
করেই বুঝলাম এটা সুইজারল্যান্ড।
কারণ,সুইজারল্যান্ডের ঠান্ডা বাতাস
আমি ভালোভাবেই চিনি।
একটু পরে
২য় জন বললঃ আমি বিমানের
জানালা দিয়ে হাত বের করেই বুঝলাম
এটা সৌদি আরব। কারণ, এখানকার গরম বাতাস
আমি ভালোভাবেই চিনি।
আরো কিছুক্ষণ পর
৩য় জন বললঃ আমি জানালা হাত বের
করেই বুঝলাম এটা বাংলাদেশের ঢাকার গূল্লিস্থান !!
বাকি ২ জনঃ কিভাবে বুঝলেন?
৩য় জনঃ কারণ, জানালা দিয়ে হাত বের
করতেই আমার
হাত-ঘড়িটা কেউ মেরে দিছে !!

০৭.
স্টিভ জবস ও বিল গেটসের মধ্যে কথা হচ্ছিল।
বিল গেটস: গতকাল একটু ব্যাংকে গিয়েছিলাম।
স্টিভ জবস: কেন?
বিল গেটস: একটা লোনের ব্যাপারে কথা বলতে।
স্টিভ জবস: তাই নাকি? তা কত টাকা লোন দরকার তোমার?
বিল গেটস: আমার না। ব্যাংকের দরকার!

০৮.
আমেরিকাঃ মোবাইল -আমাদের
আবিষ্কার।
চায়নাঃ সিমকার্ড আমাদের আবিষ্কার।
জাপানঃ এস.এম.এস আমাদের আবিষ্কার।
ইন্ডিয়াঃ আউট গোইং লক আমাদের
আবিস্কার।
বাংলাদেশঃমিসকল আমাদের দেশের আবিষ্কার!

০৯.
আবুল তার বউকে নিয়ে কফি-
শপে গেছে।
আবুলঃ কফিটা তাড়াতাড়ি শেষ
করো,
ঠান্ডা হয়ে যাচ্ছে।
বউঃ হোক, সমস্যা কি? .
আবুলঃ আরে,
মূল্য তালিকা দেখো। হট কফি- ২০ টাকা, কোল্ড
কফি- ৫০টাকা।
ঠান্ডা হয়ে গেলেই
অযথা ৩০
টাকা বেশি দিতে হবে !

১০.
বাবাঃ যদি ফেল করিস তবে আমাকে তুই আর বাবা বলে ডাকবি না !
বলে দিলাম .. (রেজাল্ট বের হওয়ার পর)
বাবা : কিরে তোর রেজাল্ট কেমন হল ?
কিছু তো বললি না ↓ছেলেঃ আমি দুঃখিত, রফিক সাহে!

১১.
একটা আপেল দুই বন্ধু
ভাগাভাগি করে খাবে ।
১ম বন্ধু আপেল টা ভাগ করে বড় অংশ টুকু নিল
২য় বন্ধু : দোস্ত তুই বড় অংশ নিলি আর
আমাকে ছোট অংশ টা দিলি ?
১ম বন্ধু : তুই হলে কি করতি ?
২য় বন্ধু : আমি বড়
অংশটা তোকে দিতাম ।
১ম বন্ধু : তাইতো বড় অংশটা নিলাম!

১২.
বিচারক : তুমি পকেট মারতে গিয়ে ধরা পড়েছে। তোমার দোষ স্বীকারে আপত্তি আছে?
আসামি : আমি নিরপরাধ হুজুর। ধরা পড়ার জন্য আমি দায়ী নই।
লোকটার পকেট এত ছোট ছিল যে, হাতটা টুকিয়ে আর বের করতে পারি নাই।

১৩.
শীতের সকাল
শীতের সকালে দুই বন্ধুর
মাঝে কথা হচ্ছে:-
১ম বন্ধু: লতিফ দেখরে পুকুরে আগুন
ধরে গেছে!
২য় বন্ধু: কি ভাবে বুঝলি?
১ম বন্ধু: দেখ পুকুরের
পানি দিয়ে ধোয়া বের হচ্ছে।
২য় বন্ধু: আরে বোকা বুঝলি না ?
১ম বন্ধু: কি?
২য় বন্ধু: পুকুরের মাছ গুলো সিগারেট
খাচ্ছে!

১৪.
এক পাগল এক চাইনিজকে জিজ্ঞেস করছে, তুমি কি আমেরিকান??
চাইনিজঃনা…আমি চাইনিজ
পাগলঃ তুমি আমেরিকান না???
চাইনিজঃ না, আমি চাইনিজ
পাগলঃ মিথ্যা বলছ,তুমি অবশ্যই আমেরিকান
চাইনিজ লোকটি শেষে বিরক্ত হয়ে বলল হ্যাঁ বাবা। আমি আমেরিকান। খুশি??
পাগলঃ চেহারা দেখে তো মনে হয় তুমি চাইনিজ

১৫.
গির্জায় কনফেশন চলছে—
চুর: ফাদার, আমি একটি মুরগি চুরি করেছিলাম। সেটা নিয়ে আপনি আমাকে পাপমুক্ত করবেন?
ফাদার: না, এভাবে হয়না, তুমি যার মুরগি তাকে ফেরত দিয়ে আসো।
চুর: ফেরত দেওয়ার চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু মুরগির মালিক ফেরত নিতে চায় না।
ফাদার: সে ক্ষেত্রে তুমি পাপমুক্ত। কারণ তুমি মুরগির মালিককে ফেরত দেওয়ার চেষ্টা করেছিলে।
মুরগিচোর খুশিমনে মুরগি নিয়ে বাড়ি চলে গেল। ওদিকে পাদ্রি বাড়ি ফিরে দেখেন তাঁর মুরগিটি নেই।

Load comments