Thursday, March 1, 2018

বাংলা হাসির এসএমএস funny Bangla sms


বাংলা হাসির এসএমএস funny Bangla sms



এক প্রতিবেশীর সাথে দেখা হল আরেক প্রতিবেশীর। : শুভ সন্ধ্যা। : সন্ধ্যা মানে? এই ভর দুপুরে বলছেন শুভ সন্ধ্যা? : আমি খুবই দুঃখিত। কিন্তু কী করব বলুন, আপনাকে দেখলেই আমার চারপাশে সব অন্ধকার হয়ে আসে যে।

মা তার ছোট্ট ছেলেকে--- মা: আব্বু, ডিনার খেতে অনেক গেস্ট আসবে এখন। যাও, তাড়াতাড়ি হাত-মুখ ধুয়ে ভালো কাপড়চোপড় পরে তৈরি হয়ে এসো। ছোট্ট ছেলে: আম্মু, গেস্টরা কি আমাকেই খাবে!

দুই ড্রাইভার আড্ডা দিচ্ছে— কি রে, শুনলাম তোর নাকি চাকরি যায় যায় অবস্থা! আজকেও দেখি গাড়ি নিয়ে বের হয়েছিস! বসরে ক্যামনে হাত করলি? হে হে, ঘটনা আছে! চাকরি যাওনের কথা শুইনাই ইচ্ছা কইরা দামি গাড়িটার একটা হেডলাইট দিছিলাম ভাইঙ্গা! তারপর? তারপর আর কী! বস কইল আগামী ছয় মাসে হেডলাইট ভাঙা বাবদ যত খরচ পড়ে তত টাকা আমার বেতন থেইকা কাইটা রাখব। তাতে কী, ছয় মাসের জন্য তো চাকরিটা একদম পাক্কা!

এলোপাতাড়িভাবে রাজপথ দিয়ে ছুটে যাচ্ছে একটি গাড়ি। আরোহীর সিটে বসে আছেন মিসেস শায়লা। মিসেস শায়লা: ও মাই গড! ড্রাইভার! তুমি আমাকে মারবার ফন্দি এঁটেছো নাকি? ড্রাইভার: ভয় পাবেন না ম্যাডাম, বেশি ভয় করলে আমার মতো চোখ বন্ধ করে বসে

পেনান্টি কিক মিস করে খেলোয়াড়টি কোচের কাছে গিয়ে খুব আফসোস করতে লাগল। : এমন একটা সহজ গোল মিস করলাম, ইচ্ছে নিজেকেই নিজে একটা লাথি মারি। : সেটাও তুমি মিস করবে।

কি পরিক্ষা কেমন হল? - আর বল না ১ এর জন্য ১০০ পাই নি ! - মানে ৯৯ ! - আরে না ! 00 পাইছি

নার্স এক বাচ্চাকে: গভীরভাবে নিঃশ্বাস নাও আর এখন ধীরে ধীরে ছাড়ো। বাচ্চা: আচ্ছা!! নার্স: এখন কেমন লাগছে? বাচ্চা: জটিল বডি স্প্রে লাগাইছেন আন্টি।

কলিং বেলের শব্দ শুনে দরজা খুলে জাহানারা দেখলেন এক ভদ্রলোক দাঁড়িয়ে আছেন। : কী ব্যাপার? : অসহায় এক বুড়ির জন্য সাহায্য চাইছি। বৃদ্ধার জামা-কাপড় কিচ্ছু নেই। মাস চারেকের বাড়ি ভাড়াও বাকি পড়েছে। এই প্রচন্ড শীতটা হয়তো রাস্তায়ই তাকে কাটাতে হবে। : বুড়ির সৌভাগ্য সে আপনার মতো একজন ভদ্রলোক পেয়েছেন। তা আপনি কে? : আমি, আমি বুড়ির বাড়িওয়ালা।

একজন চুলওয়ালা ভদ্র্রলোক আপনাকে ডাকছেন। : বলে দাও যে, আমার এখন চুলের দরকার নেই।

পর্যটক: আচ্ছা, এই পাহাড় থেকে লোকজন প্রায়ই পড়ে যায় না তো? গাইড: না, একবার পড়লেই হয়।

মফস্বল শহরে বেড়াতে এসে একজন ট্যুরিষ্ট একটা রেস্তোরাঁয় ঢুকল। ঢুকে সে দুটো সিদ্ধ ডিম আর চায়ের অর্ডার দিল। খাওয়া শেষে তাকে বলা হল বিল পঁচিশ টাকা। ট্যুরিষ্ট বলল, এত দাম ডিমের? তোমাদের এখানে কি ডিম পাওয়া যায় না? ওয়েটার বলল, ডিম পাওয়া যায়, কিন্তু ট্যুরিষ্ট পাওয়া যায় না।

 

Load comments