Sunday, April 1, 2018

উপদেশ মূলক কথা উপদেশ মূলক এস এম এস ইসলামিক উপদেশ bangla upodesh mulok kotha

(১১৫) মনের মানুষেরকাছে বেশি আবেগ প্রকাশকরতে যেওনা। কেননা,সে তোমার এই দুর্বলতারসুযোগ নিয়ে কষ্টদিতে পারে।

(১১৬) কাওকে কষ্ট দিয়ে,সুখে থাকার আশা করাটা বোকামি ছারা আর কিছুই নয় মনে রেখো, এর থেকেও প্রখর কষ্ট তোমার জন্য অপেক্ষা করছে

(১১৭) জীবনটা খুবই সাধারণ,তুমি তাই পাবে যা তুমি দিবে। সম্মান চাও,তবে সম্মান দাও। মনোযোগ প্রত্যাশা করলে,আগে মনোযোগী হও। ভালোবাসা চাও তো ভালোবাসা দাও।


(১১৮) 'মায়া' আর 'প্রেম' এক না। প্রেমের মধ্যে মায়া আছে। কিন্তু মায়ার মধ্যে প্রেম নাও থাকতে পারে। আর তাই, মানুষ মায়া করে কুকুর-বেড়াল পুষে, ওদেরকে ভালোবাসে না। কারন ভালোবাসা নাও থাকতে পারে

(১১৯) কেউ যদি অভিমানে তোমার সাথে কথা না বলে,, বুঝে নিবে সে তোমায় আড়ালে মিস করে.. আর কেউ যদি না দেখে কাঁদে,, বুঝে নিবে সে তোমায় ভীষণ ভালবাসে..!!

(১২০) কাউকে মন দিয়ে ভালবাসতে যেওনা। ভালবাসলে না পারবে বাচতে, না পারবে মরতে। দুনিয়াতে এর চেয়ে নরক যন্ত্রণা আর কি হতে পারে?

(১২১) বড় গাছ নড়ে কম। বড় মাছের কাঁটা কম। জ্ঞানী লোকের কথা কম । সৎ লোকের সংখ্যা কম। গুণী লোকের কদর কম। মরা নদীর পানি কম। রাগী লোকের ধৈর্য কম । সুস্থ লোকে খায় কম। মূর্খ লোকের আক্কেল কম। নিষ্ঠুর লোকের মায়া কম। শিশুদের হিংসা কম। সৎ লোকের বন্ধু কম। মেয়ে মানুষের বুদ্ধি কম। নিঃশ্বাসের বিশ্বাস কম|?

(১২২) কাউকে ভালোবাসার জন্য একটা শক্তিশালী হৃদয়ের প্রয়োজন । আর কারো দ্বারা আঘাত পাওয়ার পরও তাকে ভালোবেসে যাওয়ার জন্য লাগে তারচেয়েও শক্তিশালী হৃদয় । যা অনেকের থাকে না । মৃত্যর যন্ত্রণার চেয়ে বিরহের যন্ত্রণা যে কতো কঠিন, কতো ভয়ানক তা একমাত্র আমি অনুভব করতে পারি ।

(১২৩) প্রতিটা মানুষের জীবনে সময়ের মূল্য অনেক বেশি। এটি সবার মুখে মুখেই শোনা যাই।যখন এটি আমরা বাস্তবে উপলদ্ধি করি তখনই বোঝা যাই, আসলেই মানুষের জীবনে সময়ের মূল্য কতটুকু বেশি?আমি নিজেই এটাকে বাস্তবে উপলদ্ধি করলাম এবং বুঝলাম সময়কে কতটুকু গুরুত্ত দেওয়া উচিত?তাই সময়ের কাজ সময়ে করে নেওয়া ভাল...

(১২৪) ⌠জীবন হলো একটা কঠিন পরীক্ষার নাম।যে পরীক্ষায় প্রত্যেকের জন্য প্রশ্নপত্রটা ভিন্ন ভিন্ন।তাই অন্য কাউকে অন্ধভাবে নকল করতে গেলে পরীক্ষায় ফেইল করাটা স্বাভাবিক⌡-


(১২৫) "তোমার যা নেই তার পেছনে ছুটো।যা আছে তা নষ্ট করো না।মনে রেখো আজকে তোমার যা আছে।গতকাল তুমি সেটার পেছনে ছুটে ছিলে----

(১২৬) এই পৃথিবী কখনো খারাপ মানুষের খারাপ কর্মকাণ্ডের জন্য ধংস হবেনা.যারা খারাপ মানুষের এসব কর্ম-কাণ্ড দেখেও কিছু করেনা তাদের জন্যই ধংস হবে!-

(১২৭) ত্রুকে যদি একবার ভয় করো,তবে বন্ধুকে অন্তত দশবার ভয় করো।কারণ বন্ধু যদি কোন সময় শত্রু হয়,তবে সে হবে সবচেয়ে নিষ্ঠুরতম শত্রু।-

(১২৮) পাপের কাজ করে লজ্জিত হলে পাপ কমে যায়, আর পুণ্য কাজ করে গর্ববোধ করলে পুণ্য বরবাদ হয়ে যায়....-

(১২৯) জীবনের রাস্তায় একা একা হেঁটে যাওয়া খুব একটা কঠিন কাজ নয়।কিন্তু,কারো হাত ধরে অনেক টা পথ হেঁটে গিয়ে,সেখান থেকে একা একা ফিরে আসা খুব বেশি কঠিন।.

(১৩০) পৃথিবীতে আসার সময় প্রতিটি মানুষই একটি করে আলাদিনের প্রদীপ নিয়ে আসে, কিন্তু খুব কম মানুষই সেই প্রদীপ থেকে ঘুমন্ত দৈত্যকে জাগাতে পারে....

(১৩১) কারো সুখের জন্য ভালো পেনসিল না হতে পারো।কিন্তু ভালো রাবার হও,তার দুঃখ মুছার জন্য।

(১৩২) মানুষ মানুষের জন্য,মানুষকে ভেবোনা বাজারের পন্য,হয়তো ভুল করে সে তোমায় বেসেছে ভালো,তাই বলে তুমি নিভিয়ে দিওনা,তার জীবনের আলো.

(১৩৩) যখন ভালবাসা তোমার কাছে অজানা তখন বুঝবেনা সুখ কী?যখন কাউকে ভালবাসবে তখন বুঝবে ব্যাথা কী?যখন তুমি ভালবাসা হারিয়ে ফেলবে তখন বুঝবে জীবন কী

(১৩৪) বিশাল হৃদয় দিয়ে"কি হবে"যদি দুঃখ না বোঝে"ফেন্ডশিপ করে কি হবে"যদি মূল্য না দাও" ভালবেসে কি হবে"যদি ভালবাসার মানুষকে"কষ্ট দাও. তাই ভালবাসার মানুষকে কষ্ট দিও না ।

(১৩৫) মন দেখে ভালবেসো ধন দেখে নয় গুন দেখে প্রেম করো রুপ দেখে নয় রাতের বেলায় স্বপ্ন দেখো দিনের বেলায় নয় এক জনকে ভালবেসো দশ জনকে নয়

(১৩৬) কাউকে যদি ভালোবাসতে হয় তাহলে হৃদয় থেকে ভালোবাসুন। নিজের স্বার্থের জন্য তার সাথে ভালোবাসার অভিনয় করবেন না। আপনার অভিনয় হয়তো একটি মানুষের জীবনটাই এলোমেলো করে দেবে ।

(১৩৭) যে সত্যিকারের ভালবাসতে জানে......সে তার প্রিয় মানুষটির কান্নাকে আপন করে নিতে পারে।যে সত্যিকারের ভালবাসতে জানে......সে হাজারও কষ্টের মাঝে সেই মানুষটিকে সুখী রাখতে পারে।যে সত্যিকারের ভালবাসতে জানে......সে কখনো তার ভালবাসার মানুষটিকে ছেড়ে যেতে পারেনা!আর যে মানুষটি ছেড়ে চলে যায়......সে কখনো ভালবাসার যোগ্য মানুষ ছিলো না..!

উপদেশ মূলক কথা ,উপদেশ মূলক এস এম এস ,ইসলামিক উপদেশ


(১৩৮) কে তোমার সব চেয়ে ভাল বন্ধু সেটা তখনই বুঝবে, যখন তোমার কাউকে খুব প্রয়োজন হবে !!!

(১৩৯) কারো সাথে বন্ধুত্ব করার আগে তাকে পরীক্ষা করে নেয়া উচিত, সে বন্ধুত্বের যোগ্য কিনা।

(১৪০) প্রত্যেক মানুষের মাথায় এক বা একাধিক টেকনিকেল সমস্যা থাকে । আর তাই বলে এটা ভাবার কোনো অবকাশ নেই যে সে পাগল ।

(১৪১) পরের প্রশংসা পেতে হলে, অপরকে প্রশংসা করতে হয়

(১৪২) শেষবারের মতো আরেকবার চেষ্টা করে দেখি -পৃথিবীতে এই চিন্তাটাই অনেক সফল মানুষের জন্ম দিয়েছে।

(১৪৩) এমন জীবন তুমি করিও গঠণ মরিলে হাসিবে তুমি কাঁদিবে ভূবন

(১৪৪) ভাগ্য তোমার হাতে নেই, কিন্তু সিদ্ধান্ত তোমার হাতে । ভাগ্য সিদ্ধান্ত নেয় না, কিন্তু তোমার সিদ্ধান্তই তোমাকে ভাগ্য এনে দিতে পারে ৷

(১৪৫) পৃথিবিতে বেচে থাকতে হলে প্রতি পদে পদে মায়াকে তুচ্ছ করতে হয়।

(১৪৬) ভালোবাসা বদলায় না, বদলে যায় মানুষগুলো। অনুভূতি হারায় না, হারিয়ে যায় সময় গুলো।

(১৪৭) বোকা মানুষ গুলো হয়তো অন্যকে বিরক্ত করতে জানে। কিন্তু কখনও কাউকে ঠকাতে জানে না।

(১৪৮) প্রজাপতির পিছনে ছুটে সময় নষ্ট করো না। "ফুলের চাষ করো"। দেখবে প্রজাপতিই তোমার পিছনে ছুটবে।

(১৪৯) কারো সাথে বন্ধত্ব করারর আগে তাকে পরিক্ষা করে নেয়া উচিত, সে বন্ধুত্বর যোগ্য কি না.।

(১৫০) দুঃখ কমে যায় ভাগ করে নিলে,,, অভীমান চলে যায় ভালবাসা দিলে,,, কষ্ট বেড়ে যায় ভুল বুঝলে,,, হ্রদয় বেঙ্গে যায় আঘাত দিলে....

(১৫১) যদি আপনার কাছে কেউ কিছু বলতে চায়, তবে মনোযোগ দিয়ে তার কথা গুলো শুনুন। কিছু দিতে পারেন বা না পারেন, আপনার আন্তরিকতা তার হৃদয়কে স্পর্শ করবে।

(১৫২) কোনোকিছু আমাদের কাছে সবচেয়ে বেশি মূল্যবান মনে হয় দুটি সময়ে। সেটি অর্জন করার পূর্বে এবং হারিয়ে ফেলার পর। এই দুইয়ের মধ্যেবর্তী সময়ে তার মূল্য মাথায় রাখুন। তাকে হারিয়ে ফেলার সম্ভাবনা কমে যাবে।

(১৫৩) "ভুল ভ্রান্তি দিয়েই মানুষের জীবন। সেই ভুলকে প্রাধান্য দিয়ে বাকি জীবনে অশান্তি ডেকে আনবার কোন মানে হয় না"।

(১৫৪) সাফল্য সুখের কারন নয় বরং সুখই সাফল্যের চাবিকাঠি। আপনি যাই করুন না কেন, তা যদি মন থেকে ভালোবেসে খুশিমনে করতে পারেন, তবে সাফল্য আসবেই।

(১৫৫) "রাস্তায় ঘেউ ঘেউ করা সব কুকুরকে তুমি যদি ঢিল মারতে যাও তাহলে তুমি তোমার গন্তব্যেই পৌঁছাতে পারবে না"।

(১৫৬) সুখের পেছনে ছুটতে নেই।সুখ প্রজাপতির মত।ধরতে গেলে ধরা দেয়না কিন্তু চুপ করে থাকলে ঠিকই গায়ে এসে বসে।।

(১৫৭) এক ফোটা বিষ' অনেক পানি নষ্ট করতে" ছোট্ট একটা পাথর' একটা গ্লাস ভাঙ্গতে পারে" আর ছোট্ট একটা মিথ্যা কথা" পুরো Life টা নষ্ট করে দিতে পারে"

(১৫৮) অনেক জিনিস অন্যের ভাগে পড়ে যা আমার ভাগে পড়ে না , তাই নিয়ে দুঃখ করে লাভ নেই । কেননা আমার ভাগে যা পড়েছে তা অন্যের ভাগে হয়তো পড়েনি ।

(১৫৯) পাহাড়ের উপর দারিয়ে আকাশ কে যতটা কাছে মনে হয় , আকাশ ততোটা কাছে নয়. ঠিক তেমনি কোন মানুষ কে যতটা আপন মনে হয় , আসলে সে কখনো ততোটা আপন নয়.???

(১৬০) যে যেতে চায় তাকে যেতে দাও আটকিয়ে রাখার চেস্টা করো নাহ। আটকালেই সে ভাব্বে যে তাকে তোমার কোন গতি নেই, তুমি অচল। যে তোমার মুল্য বোঝে নাহ তাকে আটকে রাখার কোন দরকার নেই। AvOid Koro খুশি থাকো। Avoid করার মাঝে ও একটা মজা আছে। বিশ্বাস নাহ করলে একবার ট্রাই করেই দেখো।

(১৬১) মিথ্যাবাদির শাস্তি এই নয় যে তাকে কেউ বিশ্বাস করে না বরং সেই নিজেই কাউকে বিশ্বাস করতে পারে না।

(১৬২) জীবন হলো একটা কঠিন পরীক্ষার নাম। যে পরীক্ষায় প্রত্যেকের জন্য প্রশ্নপত্রটা ভিন্ন ভিন্ন। তাই অন্য কাউকে অন্ধভাবে নকল করতে গেলে পরীক্ষায় ফেইল করাটা স্বাভাবিক।

(১৬৩) বিপদ যত বড় হোক না কেন, তাকে চিরস্থায়ী মনে করো না ধৈর্য ধরে স্রস্টার কাছে বিপদ থেকে মুক্তির প্রার্থনা করো।

(১৬৪) “মাথা ছাড়া যেমন মানব দেহের কথা কল্পনা করা যায় না, তেমনি সবর বা ধৈর্য ছাড়া কোনো কিছুই সঠিক হয় না।”

(১৬৫) মিথ্যা বললে তা তোমার মনেই রয়ে যায়। মনকে খোঁচাতে থাকে। সত্য বলার সবচেয়ে বড় সুবিধা হলো তুমি কি বলেছো তা আর তোমার মনে রাখার প্রয়োজনীয়তা নেই।

(১৬৬) পৃথিবীতে মাত্র দুইটি গুনের সমন্বয় দেখা যায়- যোগ্যতা ও অযোগ্যতা। আর, পৃথিবীতে মানুষ ও দেখা যায় দুই রকম- যোগ্য এবং অযোগ্য

(১৬৭) জীবনে আশা করা, কারো প্রতি আস্থা রাখা ও নিজের ক্ষমতার উপর বিশ্বাস করা থামিও না। কিছু খারাপ স্মৃতির জন্য এই তিনটা থেকে বিরত থাকলে জীবনে সুখ খুঁজে পাওয়া যায় না।

(১৬৮) যে ব্যক্তি তোমার চাইতে বেশী জানে,তার নিকট থেকে জ্ঞান আহরণ কর ।আর অজ্ঞদের কিছু শেখাতে সচেষ্ট হও।

(১৬৯) "জীবনের সবচেয়ে বড় জয় হলো এমনকিছু করে দেখানো; যাসবাই ভেবেছিল তুমি কখনোইকরতে পারবেন না!"

(১৭০) শত সুন্দরের মাঝে ছোট ছোটঅসুন্দরগুলো যেমনআমাদের কাঁদায়,তেমনি শত অসুন্দরের মাঝেছোট ছোট সুন্দরগুলাইআমাদের বাঁচতে শেখায়....

(১৭১) মানুষ যখন কারো প্রশংসা করে তখনখুব কম লোকেই তা বিশ্বাস করে,কিন্তু যখন কিনা কারো বদনামকরা হয় তখন প্রায় সবাইতা বিশ্বাস করে।

Load comments